পৃথিবীর এমন ছয়টি স্থান, যেখানে কখনো সূর্য অস্ত যায় না

নির্দিষ্ট সময়ে হয় দিন এবং রাত। এছাড়া আমরা সূর্যাস্ত, আর সূর্যোদয়ে অভ্যস্ত। কিন্তু পৃথিবীতে এমনও কিছু জায়গা রয়েছে যেখানে ডোবে না সূর্য। ২৪ ঘণ্টাতেই বিরাজ করে বরুণ দেব। খাতায় কলমে এই ঘটনাকে বলা হয় ‘দ্য মিডনাইট সান’।

কানাডার কিছু জায়গায় গরমকালে প্রায় ৫০ দিনের জন্য টানা সূর্যের আলো দেখা যায়। এই দিনগুলো ছাড়া কানাডা সারা বছরই বরফে ঢেকে থাকে। এদিকে নরওয়ে মধ্যরাতের সূর্যের দেশ হিসেবে বেশ পরিচিত। কারণ এখানে ঘড়ির সময় ১২ এ.এম-এ সূর্য দেখা যায়। এই দেশে মে মাসের শেষ থেকে জুলাইয়ের শেষ দিক পর্যন্ত প্রায় ৭৬ দিনের জন্য সূর্য প্রতিদিন ২০ ঘণ্টার জন্য কখনোই অস্ত যায় না।

 

আরও পড়ুন. ভায়াগ্রা নিয়ে বিভ্রান্তি

 

সুইডেনে মে মাসের প্রথম থেকে আগস্টের শেষের দিকে সূর্য মধ্যরাতের আশপাশে ডুবে যায় এবং ভোর ৪টায় আবার ওঠে। এই দেশে স্থায়ীভাবে সূর্যের আলোর সময়কাল এক বছরের মধ্যে ৬ মাস পর্যন্ত স্থায়ী হয়। অন্যদিকে আলাস্কাতে মে থেকে জুলাই মাস পর্যন্ত সূর্যাস্ত হয় না। দর্শনীয় হিমবাহ এবং তুষারাবৃত পর্বতবেষ্টিত দেশটি এই সময়ে ভ্রমণ পিপাসুদের জন্য অন্যতম আদর্শ একটি স্থানে পরিণত হয়। বিভিন্ন দেশ থেকে আসা পর্যটকেরা আলাস্কায় এই সময় হাইকিং করেন। রাতের বেলায় সূর্যের আলোয় বরফের এই মনোমুগ্ধকর দৃশ্য দেখে পর্যটকেরা বিস্মিত হন।

বিয়ের পর দ্রুত ওজন কমাতে কার্যকরী ভেষজ খাবার ।

এছাড়া আইসল্যান্ডেও রাতের আকাশে সূর্য দেখা দেয়। জুন মাসে এই নিশীথ সূর্যের সবচেয়ে ভালো দর্শন মেলে। মে থেকে জুলাই পর্যন্ত সূর্যের আলোয় দেশটি সম্পূর্ণ আলোকিত থাকে। মূলত এই পুরোটা সময় জুড়ে, এখানে সূর্য ডোবে না। এখানে গ্রীষ্মের সময় মধ্যরাতে সূর্য অস্ত যায় এবং রাত ৩টায় আবার সূর্য উদিত হয়।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Translate »