Sri Lanka crisis: শ্রীলঙ্কার প্রধানমন্ত্রী পদে রনিল বিক্রমসিঙ্ঘে, ঘোষণা করলেন প্রেসিডেন্ট রাজাপক্ষে

বুধবারই নতুন প্রধানমন্ত্রী নিয়োগের কথা ঘোষণা করেছিলেন প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষে। এর পরেই ওই পদে নিয়োগ করা হল রনিল বিক্রমসিঙ্ঘেকে।

শ্রীলঙ্কার প্রধানমন্ত্রী হলেন রনিল বিক্রমসিঙ্ঘে। দেশ জুড়ে অর্থনৈতিক সঙ্কট ও নৈরাজ্যের আবহে বৃহস্পতিবার এই ঘোষণা করলেন প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষে। বুধবারই প্রেসিডেন্ট জাতির উদ্দেশে ভাষণে প্রেসিডেন্ট নাগরিকদের আশ্বাস দিয়ে বলেছিলেন, শীঘ্রই দেশে নতুন প্রধানমন্ত্রী নিয়োগ এবং নতুন মন্ত্রিসভা গঠন করা হবে। এর পরেই বৃহস্পতিবার নতুন প্রধানমন্ত্রী নিয়োগের খবর এল দ্বীপরাষ্ট্র থেকে। যদিও নতুন মন্ত্রিসভা গঠন কবে হবে, সে বিষয়ে বিস্তারিত কিছু জানা যায়নি।

বৃহস্পতিবার প্রেসিডেন্টের সামনে প্রধানমন্ত্রী পদে শপথ নেন শ্রীলঙ্কার ইউনাউটেড ন্যাশনাল পার্টির সদস্য ৭৩ বছরের রনিল। ২০২০ সালে শ্রীলঙ্কার সাধারণ নির্বাচনে জিতে মাহিন্দা রাজাপক্ষে ক্ষমতা দখল করেছিলেন। তার আগে ২০১৮-’১৯ সালে দ্বীপরাষ্ট্রের প্রধানমন্ত্রী ছিলেন রনিলই।

গত এপ্রিল মাস থেকে চরম অর্থনৈতিক সমস্যায় জর্জরিত শ্রীলঙ্কা। তখন থেকেই রাজাপক্ষেদের বিরুদ্ধে সরব হয়ে রাজপথে নেমেছেন বহু মানুষ। এই রাজনৈতিক টানাপড়েনের মধ্যে সোমবার প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে ইস্তফা দেন মাহিন্দা। তার পর থেকেই চরম নৈরাজ্য শুরু হয়েছে দেশ জুড়ে। জ্বালিয়ে দেওয়া হয় শাসকদলের নেতা-মন্ত্রীদের বাড়ি।

মঙ্গলবার থেকে প্রশাসনের কড়া অবস্থানে ওই অরাজকতা খানিক থামলেও বিভিন্ন প্রান্ত থেকে অশান্তির খবর আসছিল। তার মাঝেই নতুন প্রধানমন্ত্রী ঘোষণা করে দিলেন প্রেসিডেন্ট রাজাপক্ষে। গোতাবায়া এ-ও বলেছিলেন, শ্রীলঙ্কায় নতুন যে মন্ত্রিসভা গঠিত হবে, তাতে থাকবেন না কোনও রাজাপক্ষেই। এখন দেখার, কাদের নিয়ে তৈরি হয় শ্রীলঙ্কার নতুন মন্ত্রিসভা।
source : anondabazar

 

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Translate »